ঢাকা, সোমবার ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৫:২৩ অপরাহ্ন
‘আমি যাকে অক্সিজেন বলতাম, সেই আমার প্রাণ কেড়ে নিলো’
ডেস্ক রিপোর্ট ::

প্রেমিককে দায়ী করে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেছেন ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) বায়োমেডিকেল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের এক ছাত্রী। রোববার (১০ এপ্রিল) সন্ধ্যায় মাত্রাতিরিক্ত ঘুমের ওষুধ খেয়ে তিনি আত্মহত্যার চেষ্টা করেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বায়োমেডিকেল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের সভাপতি ড. রবিউল ইসলাম।

বিভাগ ও ওই ছাত্রীর সহপাঠী সূত্রে জানা গেছে, বিশ্ববিদ্যালয়ের একই বিভাগেরই ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের এক ছাত্রের সঙ্গে ওই ছাত্রীর প্রেমের সম্পর্ক রয়েছে। রোববার সকালে তাদের দেখাও হয়। এ সময় ওই ছাত্র তার বন্ধুদের সঙ্গে কথা বরেন। কিন্তু প্রেমিকার সঙ্গে কথা বলেননি। এ ঘটনায় অভিমান করে ওই ছাত্রী মাত্রাতিরিক্ত ঘুমের ওষুধ খেয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। একইসঙ্গে তিনি ফেসবুকে মৃত্যুর জন্য তার প্রেমিককে দায়ী করে স্ট্যাটাস দেন।

ওই ছাত্রী স্ট্যাটাসে লেখেন- আমার জীবনের শেষ রোজা আজ। শেষ সকাল ছিল আজকের সকাল। নিজের সঙ্গে অনেক যুদ্ধ করেছি। অনেক বেশি ক্লান্ত এখন। হয়তো জীবন আমার বোঝা আর আমিও জীবনের জন্য বোঝা হয়ে গেছি। আমার জীবনকে মৃত্যুর দিকে ঠেলে দিয়েছে সেই মানুষটা যাকে আমি আমার অক্সিজেন বলতাম। আসলেই সে আমার অক্সিজেন। সেই আমার প্রাণ কেড়ে নিলো। আমার মৃত্যুর জন্য একমাত্র সে দায়ী।

স্ট্যাটাস দেওয়ার পর ওই ছাত্রীর মেসে থাকা অন্য সহপাঠীরা বিষয়টি জানতে পারেন। এরপর তাকে বিশ্ববিদ্যালয়ের চিকিৎসাকেন্দ্রে নিয়ে যাওয়া হয়। অবস্থা খারাপ দেখে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাকে কুষ্টিয়া সদর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেন। পরে সেখানে পাকস্থলি ওয়াশ করার পর ছাত্রীর জ্ঞান ফেরে। বর্তমানে তিনি সুস্থ আছেন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্তব্যরত চিকিৎসক বলেন, রোববার আনুমানিক রাত ৮টার দিকে এক ছাত্রীকে চিকিৎসাকেন্দ্রে নিয়ে আসা হয়। সে মাত্রাতিরিক্ত ঘুমের ওষুধ খেয়েছিল। প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে আমরা তাকে কুষ্টিয়া সদর হাসপাতালে পাঠিয়ে দেই।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *