ঢাকা, বুধবার ১৯ জুন ২০২৪, ০৫:০৪ অপরাহ্ন
ঘূর্ণিঝড়ের ক্ষতি এড়াতে রাতেই ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত: দুর্যোগ প্রতিমন্ত্রী
উখিয়া নিউজ ডেস্ক :

ঘূর্ণিঝড় রেমালের ক্ষয়ক্ষতি এড়াতে আজ রাতেই ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী মুহিববুর রহমান।

আজ শনিবার সচিবালয়ে ঘূর্ণিঝড় রেমাল মোকাবিলায় নেওয়া প্রস্তুতি সভা শেষে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন প্রতিমন্ত্রী।

ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী বলেন, আগামীকাল রোববার (২৬ মে) ভোর থেকে ঘূর্ণিঝড় রেমাল বাংলাদেশের উপকূলে আঘাত হানতে পারে। সন্ধ্যায় পুরোপুরি আঘাত হানবে বলে পূর্বাভাস রয়েছে। এ জন্য আজ রাতে ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত দেওয়া হবে। ঘূর্ণিঝড় রেমালের আঘাতে কক্সবাজার থেকে সাতক্ষীরার উপকূল অঞ্চল বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে। ৭ থেকে ৮ ফুট জলোচ্ছ্বাস হতে পারে। প্রচুর বৃষ্টিপাত হবে। এজন্য পাহাড়ি অঞ্চলে ভূমিধস হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। ঘূর্ণিঝড় মোকাবিলায় মন্ত্রণালয়ের সব প্রস্তুতি রয়েছে। ৮০ হাজার স্বেচ্ছাসেবক ও উপকূলে ৪ হাজার আশ্রয়কেন্দ্র প্রস্তুত রয়েছে বলে জানান দুর্যোগ প্রতিমন্ত্রী।

প্রতিমন্ত্রী মুহিববুর রহমান বলেন, বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তরসহ পৃথিবীর অন্যান্য দেশের সঙ্গে সমন্বয় রেখে আমরা বুঝতে পেরেছি, ঘূর্ণিঝড়টি আসন্ন। এখন ১ নম্বর দূরবর্তী সতর্ক সংকেত রয়েছে। আগামী ১ থেকে ২ ঘণ্টার মধ্যে সংকেত-৩-এ চলে যাবে। এটা (সতর্ক সংকেত) রাতে ৪-এর ওপরে চলে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। রাতে বিপদের পর্যায়ে চলে যেতে পারে।

তিনি আরও বলেন, আবহাওয়ার পূর্বাভাস পর্যালোচনা করে আমরা ঝড়ের জন্য প্রস্তুতি নেওয়া শুরু করেছি। রাত ১২টা-১টা নাগাদ এটা ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত জারি হতে পারে। এমন একটা সম্ভাবনা রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *