ঢাকা, বৃহস্পতিবার ৩০ মে ২০২৪, ০৪:২৬ অপরাহ্ন
উখিয়ায় অটোরিকশা সমিতির আড়ালে চলছে চাঁদাবাজি !
নিজস্ব প্রতিবেদক ::

নিয়ম-নীতি না মেনে উখিয়ার ব্যস্ততম সড়ক, উপ-সড়কে বেপরোয়াভাবে চলাচল করছে ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা। যানজট ও সড়ক দুর্ঘটনার অন্যতম কারণ উল্লেখ করে যাত্রীসাধারণ ব্যাটারিচালিত অটোরিকশার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

সরজমিনে কয়েকটি এলাকা ঘুরে স্থানীয়দের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, আগে যারা দৈনিক মজুরিতে শ্রমের কাজ করতেন মূলত তারাই ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা চালাচ্ছেন। পাশাপাশি বেশির ভাগ চালক রোহিঙ্গা। অদক্ষ এসব চালক সড়কে বেপরোয়া চলাচল করার কারণে যানজট ও সড়ক দুর্ঘটনা বেড়েছে।

প্রবীণ শ্রমিক নেতা সোনা মিয়া ড্রাইভার জানান, উখিয়ার বিভিন্ন সড়ক, উপ-সড়ক ও আঞ্চলিক সড়কে প্রায় ৫ হাজার ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা চলাচল করছে। যানবাহন চলাচলের নীতিমালা সম্পর্কে অজ্ঞতার কারণে তারা কোনো না কোনোভাবে দুর্ঘটনার শিকার হচ্ছে। এদিকে দেশব্যাপী ব্যাটারিচালিত তিন চাকার গাড়ি বন্ধের নির্দেশ দিয়েছে হাইকোর্ট।

এছাড়া ব্যাটারিচালিত তিন চাকার যানবাহন আমদানি ও বিক্রির ওপর নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে আদালত। এর আগে দেশে মোটরচালিত সব ধরনের রিকশা থেকে ব্যাটারি ও অন্যান্য মেশিনারি সরিয়ে নেওয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ নির্দেশ জারি করলেও তা কার্যকর না হওয়ায় সাধারণ যাত্রীদের মধ্যে দেখা দিয়েছে অসন্তোষ।

আন্তঃজেলা ট্রাক মালিক শ্রমিক সংগঠনের সভাপতি মো. শাহজাহান জানান, ব্যাটারিচালিত অটোরিকশাভিত্তিক ব্যাঙের ছাতার মতো গজিয়ে ওঠা সমিতির আড়ালে চলছে ব্যাপক চাঁদাবাজি। যেখান থেকে অনেকেই মাসোহারা পাচ্ছেন। যে কারণে ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা সংশ্লিষ্টরা সরকারি বিধিনিষেধ মানছেন না। অপ্রতিরোধ্য হয়ে উঠেছে যানজটসহ সড়ক দুর্ঘটনা।

এব্যাপারে জানতে চাইলে ব্যাটারিচালিত অটোবাইক সমিতির সভাপতি সামসুল আলম চাঁদা আদায়ের সত্যতা স্বীকার করে বলেন, এসব টাকা বিভিন্ন খাতে ভাগ-বাটোয়ারা হয়। উখিয়া থানার ইনচার্জ আহমেদ সঞ্জুর মুরশেদ জানান, অবিলম্বে সড়কে চলাচলরত অবৈধ যানবাহনের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *